উৎসবমুখর পরিবেশে পালিত হচ্ছে বাংলা নববর্ষ ১৪২৪

ঢাকা | 2017/04/14 | 10:30

বাংলাদেশের রাজধানী ঢাকাসহ সারাদেশে উৎসবমুখর পরিবেশে পালিত হচ্ছে বাংলা নববর্ষ ১৪২৪। রমনার বটমূলের ঐতিহ্যবাহী সংগঠন ছায়ানট ভোরের সূর্যের আলো দেখার সঙ্গে সঙ্গেই অর্থাৎ ভোর ৬টা ১০ মিনিটে সরোদবাদন দিয়ে শুরু করে বর্ষবরণের মূল অনুষ্ঠান। 

‘আনন্দ, বাঙালির আত্মপরিচয়ের সন্ধান ও অসাম্প্রদায়িকতা’ এ প্রতিপাদ্যে এবার বর্ষবরণের আয়োজন সাজিয়েছে ছায়ানট। গান আর পাঠাবৃত্তির মধ্য দিয়ে স্বাগত জানানো হয় বঙ্গাব্দ ১৪২৪-কে।

রমনার বটমূলে ছায়ানটের বর্ষবরণ আয়োজনের পঞ্চাশ বছর পূর্ণ হলো এ বছর। এই বিশেষ আয়োজনে অংশ নিয়েছেন ছায়ানটের ১১১ জন শিল্পী-শিক্ষার্থী। 

সত্য আর সুন্দরের আবাহনের মধ্য দিয়ে নববর্ষ উপলক্ষে শুক্রবার সকাল ৯টায়  ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি  আ আ ম স আরেফিন সিদ্দিকের নেতৃত্বে চারুকলার সামনে থেকে বের হয় মঙ্গল শোভাযাত্রা। আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর কড়া নিরাপত্তাবেষ্টনীতে মঙ্গল শোভাযাত্রাটি রূপসী বাংলা মোড় হয়ে টিএসসি হয়ে আবার চারুকলায় গিয়ে শেষ হয়।  

তিন দশক ধরে বর্ষবরণের অন্যতম আকর্ষণ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের চারুকলা অনুষদের মঙ্গল শোভাযাত্রা। গত বছর ইউনেসকোর বিশ্ব ঐতিহ্যের স্বীকৃতি পেয়েছে এ শোভাযাত্রা। 


রমনার বটমূলে ছায়ানটের বর্ষবরণ অনুষ্ঠান
এবারের মঙ্গল শোভাযাত্রার মূল প্রতিপাদ্য করা হয়েছে ‘আনন্দলোকে মঙ্গলালোকে বিরাজ সত্য সুন্দর...।’ মঙ্গল শোভাযাত্রায় অংশগ্রহণ করে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থীসহ হাজারো মানুষ।

প্রতিবারের মতো এবারও মঙ্গল শোভাযাত্রায় হরেক রঙের মুখোশ, হাতি, বাঘ, ফুল, পাখির প্রতিকৃতি। এবারের শোভাযাত্রায় মোটিভগুলোর মধ্য দিয়ে মানুষের দ্বৈত সত্তাকে তুলে ধরা হয়েছে। একদিকে ছিল অনেকগুলো সূর্যের মুখের কাঠামো, যার একপাশে ছিল সূর্যের আলোয় উদ্ভাসিত মুখ। আর অন্যদিকে ছিল সূর্যের বিপরীতে অন্ধকার কদাকার মুখ। মানুষের অন্তনির্হিত এই দুই রূপ কাঠামোয় তুলে ধরা হয় এবারের মঙ্গল শোভাযাত্রায়।

নববর্ষ উপলক্ষে দেশের জাতীয় সংবাদপত্রগুলো বাংলা নববর্ষের বিশেষ দিক তুলে ধরে ক্রোড়পত্র বের করেছে। সরকারি ও বেসরকারি টিভি চ্যানেলে নববর্ষকে ঘিরে বর্ণাঢ্য অনুষ্ঠানমালা প্রচার করা হচ্ছে। নতুন বছরের প্রথম এ দিনটিতে আজ সব কারাগার, হাসপাতাল ও শিশু পরিবারে (এতিমখানা) উন্নত মানের ঐতিহ্যবাহী বাঙালি খাবারের ব্যবস্থা করা হয়েছে। শিশু পরিবারের শিশুদের নিয়ে ও কারাবন্দিদের পরিবেশনায় থাকছে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। কয়েদিদের তৈরি বিভিন্ন দ্রব্যাদি প্রদর্শনীর ব্যবস্থা করা হয়েছে। 

নতুন বছর উপলক্ষে দেশবাসীকে নতুন বছরের শুভেচ্ছা জানিয়ে বাণী দিয়েছেন প্রেসিডেন্ট মো. আবদুল হামিদ, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, বিরোধী দলের নেতা রওশন এরশাদ, বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া, জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদসহ রাজনৈতিক দলের প্রধানরা।

READ : 659 times

এইদিনে